soil geography in Bengali

Soil

মাটির সম্বন্ধে ধারণা





মাটির সম্বন্ধে জ্ঞান

1. মাটি বা মৃত্তিকা কাকে বলে ?

উত্তর :-

সাধারণভাবে ভূপৃষ্টের ওপর পড়ে থাকা শিথিল , নিষ্ক্রিয় ও ধুসর রঙের স্তর বা নরম আবরণ যা খনিজ পদার্থ , জৈব পদার্থ , জলবায়ু এবং নানারকম কীটপতঙ্গ ও ব্যাকটেরিয়া দ্বারা গঠিত এবং যা বৃক্ষাদিকে ধরে রাখে , তাকে মাটি বা মৃত্তিকা বলে ।
ইংরেজি 'Soil' শব্দটি লাতিন "Solum" (সোলুম বা সোলাম) থেকে এসেছে , যার মানে ভূমিতল বা মেঝে বা মৃত্তিকা বা মাটি ।


2. মাটি কয় প্রকার ও কী কী ?

উত্তর :-

মাটি তিনপ্রকার । যথা -
(i) এঁটেল মাটি (Clayey Soil)-- মাটির কনা গুলো বড়ো বড়ো হয় ।
(ii) বেলে মাটি (Sandy Soil)-- মাটির কনা কাদার কনার চেয়ে বড়ো হয় ।
(iii) দোঁয়াশ মাটি (Loamy Soil)-- বালি আর কাদার ভাগ প্রায় সমান সমান ।


3. মাটির কাদার কনার বৈশিষ্ট্য কী ?

উত্তর :-

কাদার কনা শক্ত হয় । কণাগুলোর ফাঁকে ফাঁকে একটু জল আর বাতাস থাকে । জল শুকোলে কণাগুলো গায়ে গায়ে লেগে শক্ত হয়ে যায় । কাদামাটি গুঁড়ো করে জল দিলে আঠার মতো হয়ে যায় ।


4. মাটি খারাপ বা দূষিত হলে কী হবে ?

উত্তর :-

মাটি খারাপ হলে -- (i) মাটির ফসল তৈরির ক্ষমতা কমে যায় ।
(ii) মাটির উপরটা নষ্ট হয়ে যায় ।
(iii) মাটিতে জল জমে থাকে ।
(iv) মাটির বাঁধন আলগা হয়ে যায় ।

5. মাটির স্বাভাবিক ও অস্বাভাবিক উপাদানগুলির উদাহরণ দিন ।

উত্তর :-

স্বাভাবিক উপাদান :- গোবর , পচাপাতার কুচি , মাছের কাঁটা ইত্যাদি ।
অস্বাভাবিক উপাদান :- পলিথিনের কুচি , অ্যালুমিনিয়ামের কুচি , পেনের রিফিল টুকরো ইত্যাদি ।


6. মাটি বা মৃত্তিকার উপাদানগুলি কী কী ?

উত্তর :-

মৃত্তিকা সৃষ্টির প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষ উপাদানগুলি হল -
সূর্যতাপ,বৃষ্টিপাত,বায়ুপ্রবাহ,জলস্রোত ইত্যাদি প্রাকৃতিক শক্তি এবং শিলার ছোটো দানা , জীবিত ও মৃত উদ্ভিদ এবং প্রানীদেহ ইত্যাদি ।


7. মৃত্তিকার সমীকরণ কী?

উত্তর :-

S= f (Cl,O,R,P,T)
S= Soil (মাটি),
F= Function(কার্যকারিতা)
Cl= Climate (জলবায়ু)
O= Organic Activity (জীবমন্ডল)
R= Relief (ভূপ্রকৃতি)
P= Parent Material (জনকশিলা)
T= Time (সময়)


8. অবশিষ্ট মৃত্তিকা বা মাটি কী ?

উত্তর :-

নরম মাটি বা মৃত্তিকা স্তরের নীচে শিলাখন্ড এবং তার নীচে কঠিন শিলাস্তর দেখতে পাওয়া যায় । এই রকম স্তরবিশিষ্ট মৃত্তিকাকে অবশিষ্ট মৃত্তিকা বা মাটি বলে ।


9. অপসৃত মৃত্তিকা বা মাটি কী ?

উত্তর :-

নদীস্রোত, বৃষ্টি , হিমবাহ , বায়ুপ্রবাহ ,জীবজন্তু প্রভৃতি শক্তি দ্বারা শিলাচুর্ণ এক জায়গা থেকে অপসারিত ও অন্যত্র সঞ্চিত হয়ে যে মৃত্তিকার সৃষ্টি করে , তাকে অপসৃত মৃত্তিকা বা মাটি বলে ।


10. মাটি উর্বর হয় কেন ? মাটির দুটি ক্ষতিকারক উপাদানের নাম কর ?

উত্তর :-

মাটিতে সজীব জৈব উপাদান থাকে । এগুলি মাটির মৃত জৈব উপাদানকে ভাঙতে সাহায্য করে । এর ফলে মাটি উর্বর হয় ।
ক্ষতিকারক উপাদান :- পলিথিন , প্লাস্টিক । এরা গাছের শিকড় মাটিতে ডুকতে বাধা দেয় । এর ফলে গাছের শিকড় আলগা হয়ে যায় ।ঝড়ে গাছ উল্টে যায় । ওগুলো মাটিকে আলো-হাওয়া পেতে দেয় না ।


11. মৃত্তিকা গ্রথন (Texture)কাকে বলে ?

উত্তর :-

মৃত্তিকার অন্তর্গত খনিজকনার বিন্যাসকে বলা হয় গ্রথন (Texture)।


12. হিউমাস (Humus) কী ?

উত্তর :-

সূক্ষ্ম (ছোটো) জীবানুরা জৈব পদার্থকে বিয়োজিত করে যে কার্বন,অক্সিজেন,নাইট্রোজেন, হাইড্রোজেন, প্রোটিন ইত্যাদি সমৃদ্ধ স্তর। প্রসঙ্গত , বিয়োজিত জৈব পদার্থকে হিউমাস (Humus) বলে।


13. ভারতের মাটি বা মৃত্তিকার শ্রেনিবিভাগগুলির নাম লেখো ।

উত্তর :-

ভারতের মৃত্তিকাকে প্রধানত ছয়টি ভাগে ভাগ করা যায় । যথা -
i. পাললিক মৃত্তিকা
ii. কৃষ্ণ মৃত্তিকা
iii. লোহিত মৃত্তিকা
iv. ল্যাটেরাইট মৃত্তিকা
v. মরু অঞ্চলের মৃত্তিকা
vi. পার্বত্য অঞ্চলের মৃত্তিকা


14. মাটিতে হিমাস-এর প্রয়োজনীতা কী ?

উত্তর :-

হিউমাস মাটির উর্বরতা বাড়ায় । মাটিতে জল ও বায়ুর প্রবাহ সচল রাখে । মাটির গ্রথন (Texture) ঠিক রাখে ।


15. ল্যাটেরাইট মৃত্তিকার এইরূপ নামকরণের কারণ কী ?

উত্তর :-

লাতিন ভাষায় "ল্যাটার (Later)" শব্দের অর্থ হল - ইট। ইটের মতো শক্ত আর লাল রঙের হয় বলে, এই মৃত্তিকার নাম ল্যাটেরাইট ।


16. দোঁয়াশ মাটি (Loamy Soil) কী?

উত্তর :-

দোঁয়াশ মাটিতে বালি ও কাদা প্রায় সমপরিমানে থাকে ।
ভারতের পাঞ্জাব , উত্তরপ্রদেশ, বিহার ও পশ্চিমবঙ্গের পলিমাটি অঞ্চলে দোঁয়াশ মৃত্তিকা পাওয়া যায় ।


17. এঁটেল মাটি (Clayey Soil) কী?

উত্তর :-

কাদার ভাগ বেশি থাকায় এঁটেল মাটি বেশিক্ষণ জল ধরে রাখতে পারে ।
গঙ্গা নদীর বদ্বীপ অঞ্চলে পাওয়া যায় ।


18. বেলে মাটি (Sandy Soil) কী ?

উত্তর :-

বেলে মাটিতে বালির ভাগ বেশি হওয়ায় জল ধরে রাখতে পারে না ।
গাঙ্গেয় উপত্যকার পশ্চিমাংশ বেলে মাটি দেখা যায় ।


19. কালো মাটি কাকে বলে ?

উত্তর :-

লাভা গঠিত ব্যাসল্ট শিলা থেকে উৎপন্ন হওয়ায় এই মাটির বং কালো হয় ।
খনিজসম্পদে সমৃদ্ধ হওয়ায় এই মাটি উর্বর প্রকৃতির।


20. লাল মাটি কাকে বলে ?

উত্তর :-

গ্রানাইট ও নিস জাতীয় শিলা ক্ষয়প্রাপ্ত হয়ে এই মাটি সৃষ্টি হয় । লোহার ভাগ বেশি বলে এই মাটির বং লাল ।
এই মাটির জল ধারণ ক্ষমতা কম তাই অনুর্বর প্রকৃতির ।

About soil

soil geography in Bengali

geography of west bengal for wbcs

Geography of West Bengal in Bengali

geography notes for wbcs




যদি তোমাদের এগুলো ভালো লাগে তাহলে কোমান্ড কর আর শেয়ার কর। তাহলে আমি আরও লিখব তোমাদের জন্য ।


ধন্যবাদ
soil বা মাটি
Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url